৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

সৌদিতে নিহত নাজমুলের মরদেহ আনতে প্রধানমন্ত্রীর সাহায্য চায় পরিবার

প্রতিনিধি :
Masud Rana
আপডেট :
ডিসেম্বর ২৬, ২০২২
19
বার খবরটি পড়া হয়েছে
শেয়ার :
| ছবি : 

মাসুদ রানা সৌদি আরব প্রতিনিধিঃ সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত নাজমুল হোসেনের (২৬) মরদেহ দেশে ফেরা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। পরিবারের সদস্যরা তার মরদেহ আনতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহযোগিতা চেয়েছেন।১৪ ডিসেম্বর সৌদি আরবের হাইল শহরে সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান নাজমুল। তিনি টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার তরফপুর ইউনিয়নের টাকিয়া কদমা গ্রামের মধু মিয়ার ছেলে।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, এক বছর আগে ধারদেনা করে নাজমুল ও বাবুল দুই ভাই সৌদি আরব পারি জমান। ছয় মাস আগে কোম্পানিতে কাজ না থাকায় কর্মহীন হয়ে পড়েন নাজমুল। পরে কোম্পানি থেকে পালিয়ে অন্যত্র কাজ শুরু করেন তিনি। গত ১৩ ডিসেম্বর কর্মস্থলে যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হন নাজমুল। তাকে উদ্ধার করে একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৪ ডিসেম্বর মারা যান। এখন নাজমুলের মরদেহ দেশে আনতে সাড়ে তিন লাখ টাকার মতো প্রয়োজন বলে সৌদি আরবে থাকা নাজমুলের ভাই বাবুল পরিবারকে জানান।

এদিকে কোম্পানি থেকে পালিয়ে গিয়ে অবৈধ হওয়ায় নাজমুলের দায়িত্ব নিচ্ছে না তার আগের কোম্পানি। ফলে মরদেহ দেশে আনা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে

এদিকে ছেলের মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে মধু মিয়া অসহায় হয়ে পড়েছেন। এক দিকে সংসারের ঋণ, অন্যদিকে ছেলের মরদেহ দেশে আনা নিয়ে তিনি চিন্তিত। টাকার চিন্তায় বাবা মধু মিয়া ও মা মমতা বেগম বারবার জ্ঞান হারিয়ে ফেলছেন।নাজমুলের স্ত্রী চাঁদনী বেগম (১৮) জানান, দেড় বছর আগে নাজমুলের সঙ্গে তার বিয়ে হয়। বিয়ের সাত মাস পর সৌদি যান নাজমুল। গত দুই মাস আগে তার একটি কন্যা সন্তান হয়েছে। অনেক টাকা ধারদেনা করে তিনি বিদেশ গিয়েছিলেন। কোম্পানিতে কাজ না থাকায় সেখান থেকে পালিয়ে বাইরে কাজে যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান। তিনি শেষবারের জন্য তার স্বামীর মুখ দেখার আকুতি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সমাজের বিত্তবানদের সহযোগিতা কামনা করেছেন।

সর্বশেষ খবর
menu-circlecross-circle linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram