১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঝিনাইদহে জাহেদী ফাউন্ডেশনের মহতি উদ্যোগে গরীব ও দুঃস্থদের মাঝে কুরবানীর মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ

প্রতিনিধি :
শরিফুল ইসলাম রোকন
আপডেট :
আগস্ট ২, ২০২০
74
বার খবরটি পড়া হয়েছে
শেয়ার :
| ছবি : 


জাহিদুর রহমান তারিক, ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহে জাহেদী ফাউন্ডেশনের মহতী উদ্যোগে প্রতিবছরের ন্যায় ভয়াবহ মহামারি করোনাকালীন সময়েও পবিত্র ঈদুল আযাহা উপলক্ষে সমাজের অবহেলিত গরীব ও দুঃস্থ মানুষের জন্য সম্পুর্ণ নিজস্ব অর্থায়নে প্রায় ৩০ হাজার কার্ডধারী মানুষের মাঝে জনপ্রতি ২কেজি করে গরুর মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ করা হয়েছে। বিতরণ কার্যক্রম চলবে ঈদুল আযহার পরের দিন হতে তিন দিন পর্যন্ত। এছাড়া এলাকার সমস্ত এতিম খানায় কোরবানীর গরু ও ছাগলের চামড়া বিতরন করা হয়। তাছাড়া জেলার গিলাবাড়িয়া, হাকিমপুর, ভেন্নাতলা, খাজুরা গ্রাম, ছোট-কামারকুন্ডু, মথুরাপুরসহ ৬টি গ্রামে জাহেদী ফাউন্ডেশনের কোরবানির মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ করা হয়েছে।

জাহেদী ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহিদী মহুল এর আয়োজনে ২রা আগষ্ট রবিবার সকালে ঝিনাইদহের পঞ্চগ্রাম মুক্তিযোদ্ধা দাখিল মাদ্রসা প্রাঙ্গনে মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ কর্মসূচী (কোরবানীর মাংস) উদ্বোধন করা হয়। জাহেদী ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহিদী মহুল এর পক্ষ থেকে কাইয়ুম শাহরিয়ার জাহেদী হিজল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের বক্তব্য শেষে গরীব ও দুঃস্থ মানুষের মাঝে মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ করা শুরু হয়। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ইউনুস আলী, রবিউল মাষ্টার, মনির হোসেন, সাবু মিয়া, ইছাহাক আলী বিশ্বাস, আব্দুল বাড়ি মেম্বর, গনজের আলী খাঁ, ফজলু বিশ্বাস, নজরুল ইসলাম, মসলেম উদ্দিন বিশ্বাস, আ:ছাত্তার খাঁসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। আগে থেকেই ঝিনাইদহের বিভিন্ন গ্রাম ও মহল্লায় অরাজনৈতিক ব্যক্তিদের মাধ্যমে প্রকৃত গরীবদের তালিকা তৈরি করে তাদের মাঝে কার্ড দেয়া হয়েছিল। করোনা কালীন সময়ে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে রবিবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত পুরুষ ও মহিলারা লাইনে দাঁড়িয়ে খাদ্যসামগ্রী গ্রহণ করে। এদিকে এক সাথে প্রায় ৩০ হাজার মানুষের মাঝে জনপ্রতি ২ কেজি করে গরুর মাংস ও প্রত্যেকে নগদ টাকা পেয়ে সবাই খুবই খুশী।

ভয়াবহ মহামারি করোনাকালে গরীব ও অসহায় মানুষের জন্য সরকার ও বিভিন্ন দাতা সংস্থার দেয়া কোটি কোটি টাকা এবং চাল গম যখন এক শ্রেণীর মানুষ হরিলুট করে নিজেদের আখের গোছাতে ব্যস্ত তখন নিজের অর্থে এমন একটি মহতী উদ্যোগ নেয়ায় জেলা জুড়ে সুশিল সমাজ বিভিন্ন শ্রেনী প্রতিষ্ঠান ও সাধারণ মানুষের মধ্যে ইতিবাচক সাড়া পড়েছে। জাহেদী ফাউন্ডেশনের পক্ষে তবিবুর রহমান লাবু সাংবাদিদের জানান, ঝিনাইদহ জেলায় প্রতিবছরের ন্যায় এবারও প্রায় ৩০ হাজার গরীব ও দুঃস্থদের মাঝে ২ কেজি করে মাংশ ও নগদ টাকা প্রদাণ করা হবে। ঈদুল আযাহার পরের ৩ দিন পর্যন্ত প্রায় তিন শত কোরবানি দেওয়া গরুর মাংস বিতরন করা হবে। মাংশ ও নগদ টাকা নিতে আসা পুরুষ ও মহিলারা জানান, মহুল সাহেব শুধু দুঃস্থদের মধ্যে প্রতি কুরবানীর মাংস বিতরন করেন তা নয়, বহুদিন ধরে মহুল সাহেব মেডিকেল ক্যাম্প স্থাপন করে অসুস্থ ব্যক্তিকে বিনামূল্যে চিকিৎসা, ঔষধ বিতরন, রোজা, ঈদ ও বিভিন্ন সময় অসহায় ব্যক্তিদের দান সহ আর্থিক সেবা করে থাকেন।

জাহেদী ফাউন্ডেশনের পক্ষে ইউনুস আলী সাংবাদিকদের জানায়, শুধু গরীব মানুষের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ নয়, গরীব মেধাবী শিক্ষার্থীদের আর্থিক অনুদান, এতিম খানার শিশুদের সহায়তা ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক ও মানবিক কাজে তাদের সাধ্যমত সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে। এ বিষয়ে জাহেদী ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক ও রেডিয়েন্ট ফার্মাসিটিক্যালস লিমিটেডের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহেদী মহুল মুঠোফোনে সাংবাদিকদের বলেন, শুধু ঝিনাইদহ পৌর এলাকা নয়, জেলার কালীগঞ্জ, শৈলকুপা, হরিণাকুন্ডু. কোটচাঁদপুর ও মহেশপুর উপজেলায় এবং দেশের ৫জেলায় এক যোগে এই খাদ্য বিতরণ করা হয়। শুধুমাত্র মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকেই তিনি এ ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেছেন। কারণ সমাজের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জন্য কিছু দায়বদ্ধতা থাকা উচিত বলে তিনি মনে করেন।

সর্বশেষ খবর
menu-circlecross-circle linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram