সাম্প্রতিক

অনুমোদনহীন চলছে বামন্দীর নিউ সনো ক্লিনিকঃ ডাক্তার নার্স ছাড়াই যথারীতি ॥ দেখার কেউ নেই

সাম্প্রতিকী ডেস্কঃ : ডাক্তার নার্স ছাড়াই যথারীতি চলছে গাংনীর বামন্দী বাজারের অনুমোদনহীন নিউ সনো ক্লিনিক। দেখভাল কিংবা নজরদারির কেউ নেই। এলাকাবাসির অভিযোগসূত্রে জানা গেছে, গাংনীর বামন্দী বাজারে অবস্থিত নিউ সনো ক্লিনিক জমজমাট ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। এলাকাবাসি অভিযোগ করেছেন- কুষ্টিয়া শহরের নাম করা চিকিৎসা সেবাদানকারি প্রতিষ্ঠান সনো সেন্টারের নামে নাম বামুন্দী বাজারের আমিন মিস্টান্ন ভান্ডারের উপর তলায় অবস্থিত এই নিউ সনো ক্লিনিকে নিয়মানুযায়ি একজনও পাশ করা নার্স কিংবা ডাক্তার নেই। কোন ধরনের নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করেই এ ক্লিনিক মালিক মঞ্জুরুল ইসলাম মঞ্জু দেদারছে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। শর্ত মোতাবেক প্রতিটি ক্লিনিকে ৬ জন ডিপ্লোমা নার্স ও ৩ জন সার্বক্ষণিক এমবিবিএস ডাক্তার উপস্থিত থাকার বাধ্যবাধকতা থাকতে থাকলেও এ ক্লিনিকে একটিও ডিপ্লোমা নার্স কিংবা সার্বক্ষণিক ডাক্তার নেই। মোটেও নেই স্বাস্থ্যসম্মত পরিবেশ। অপারেশন থিয়েটারের যাচ্ছেতাই অবস্থা। এ ক্লিনিকের মালিক পূর্বে গাংনীর সীমান্তবর্তি কাজীপুরে ছিল বলে অভিযোগ রয়েছে। ওই এলাকার মানুষের আপত্তির মুখে পরে বামুন্দী বাজারে স্থানান্তরিত করে। সেখানে কোন বিবেচনাতেই অপারেশন করা সম্ভব নয়। তবুও মাঝে মধ্যে ডাক পেয়ে ছুটে যান বিভিন্ন ডিপ্লোমা ডাক্তার। এলাকার অনেকে জানিয়েছেন, ক্লিনিক মালিক এ সকল ডিপ্লোমা ডাক্তারকেই বিখ্যাত সার্জন পরিচয় দিয়ে রোগিদের সাথে প্রতারণা করা হয়। ক্লিনিকটি নিয়ে বামুন্দী বাজারে আপত্তিকর মন্তব্যও করেছেন কেউ কেউ। এমবিবিএস ডাক্তার ও নার্সবিহীন অনুমোদনহীন এ ক্লিনিকটি কীভাবে চলছে তার খবর সংশ্লিষ্ট মহল রাখেন কি? এ প্রশ্ন এলাকার সচেতন মহলের।