সাম্প্রতিক

বাবার সঙ্গে দেখা নয়

বাবার সঙ্গে যাতে দেখা করতে না পরে সেজন্য তিন সন্তানকে ১২ বছর একটি বাসায় বন্দী করে রেখেছিল তাদের মা। বুধবার সুইডেনের ব্রোমোল্লা শহর থেকে ৫৯ বছর বয়সী ওই নারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। একই সঙ্গে উদ্ধার করা হয়েছে সন্তানদের।

ব্রিটিশ দৈনিক মিরর জানিয়েছেন, সন্তানরা যাতে তাদের বাবার দেখা না পায় সেজন্য এক যুগেরও বেশি সময় ধরে ওই নারী সুইডেনের বিভিন্ন শহরে বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতেন। কোথাও তিনি দীর্ঘ সময় অবস্থান করতেন না।

বুধবার ওই নারীর জ্যেষ্ঠ সন্তান কোনভাবে ফ্ল্যাট থেকে পালাতে সক্ষম হয়। সে এক প্রতিবেশির কাছে যেয়ে তাদের বন্দীদশার বিষয়টি খুলে বলে। এরপর ওই প্রতিবেশি পুলিশকে ফোন দিলে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে। একই সঙ্গে ওই নারীকেও আটক করা হয়।

হান্না পারসন নামে এক প্রতিবেশি জানান, ‘আমি যখনই ওই ফ্ল্যাটের পাশ দিয়ে যেতাম তখন সেখানে কোন শব্দ পেতাম না। কোন বাজে বিষয় আমার চোখে কখনও পড়েনি।’

দুই রুমের ওই বাসাটিতে দুই বছর আগে উঠেছিলেন ওই নারী। বাসায় কোন খাট ছিলো না। মেঝেতে মেট্রেস বিছানো ছিলো এবং তাতেই সবাই ঘুমাতো। এছাড়া বাসায় কোন টেলিভিশনও নেই।

সন্তানরা যাতে বাসা থেকে বের হতে না পারে সেজন্য ওই নারী সবসময় তাদের তালাবদ্ধ করে রাখতেন। ওই তিন কন্যা সন্তানের বয়স এখন ৩২, ২৪ ও ২৩।

গণমাধ্যমে এই সংবাদ প্রকাশের পর এক ব্যক্তি ওই তরুণীদের নিজের সন্তান বলে দাবি করেছেন। তিনি জানান, ১৭ বছর ধরে তিনি তাদের খুঁজছেন।