সাম্প্রতিক

৭৫ প্রার্থীর মধ্যে ৪৩ জনের আপিল বৈধ

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে আপিল করেন ৫৪৩ জন। এর মধ্যে ৭৫ জনের আপিল নিষ্পত্তি করেছে নির্বাচন কমিশন । এর মধ্যে প্রার্থিতা বৈধ ঘোষিত হয়েছে ৪৩ জন। বাকি ৩১ জনের আপিলের সিদ্ধান্ত গ্রহণ না করায় তাদের প্রার্থীতা বাতিল করা হয়েছে। মীর নাসিরের বিষয়ে কোন সিদ্ধান্ত দেয়া হয়নি।

প্রথম দিনের শুরুতেই প্রার্থিতা ফিরে পেয়েছেন বগুড়া-৭ আসনে বিএনপির প্রার্থী মোর্শেদ মিল্টন, ঢাকা-২০ আসনে ধামরাই উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো. তমিজ উদ্দিন, কিশোরগঞ্জ-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মেজর (অব.) আখতারুজ্জামান, পটুয়াখালী-৩ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী গোলাম মাওলা রনি, ঝিনাইদহ-২ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আব্দুল মজিদ, ঢাকা-১ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী খন্দকার আবু আশফাক, জামালপুর-৪ ফরিদুল কবির তালুকদার শামীম, পটুয়াখালী-৩ মোহম্মদ শাহজাহান, পটুয়াখালী-১ মো. সুমন সন্যামত, মাদারিপুর-১ জহিরুল ইসলাম মিন্টু, সিলেট-৩ আবদুল কাইয়ুম চৌধুরী, জয়পুরহাট-১ ফজলুর রহমান, পাবনা-৩ হাসাদুল ইসলাম, মানিকগঞ্জ-২ আবিদুর রহমান খান, সিরাজগঞ্জ-৩ আয়নাল হক, গাজীপুর-২ মাহবুব আলম, গাজীপুর-২ জয়নাল আবেদীন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬ জেসমিন নূর বেবী, রংপুর-৪ মোস্তফা সেলিম, খুলনা-৬ এসএম শফিকুল আলম, হবিগঞ্জ-১ জুবায়ের আহমেদ, ময়মনসিংহ-৭ য়নাল আবেদীন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আবদুল্লাহ আল হেলাল, ময়মনসিংহ-২ মো. আবু বকর সিদ্দিক।

অন্যদিকে, চাপাইনবাবগঞ্জ-১ মো. শামসুল হুদা, চাপাইনবাবগঞ্জ-২ মো. তৈয়ব আলী, মাদারিপুর-৩ মো. আবদুল খালেক, দিনাজপুর-২ মোকারম হোসেন, দিনাজপুর-১-এর মো. পারভেজ হোসেন, ঠাকুরগাঁও-৩ এস এম খলিলুর রহমান, ফেনী-১ মিজানুর রহমান, কিশোরগঞ্জ-৩-এর ড. মিজানুল হক, ময়মনসিংহ-৪ আবু সাইদ মহিউদ্দিন, নেত্রকোনা-১ মো. নজরুল ইসলাম, ময়মনসিংহ-২ এমদাদুল হক, খুলনা-২ এস এম এরশাদুজ্জামান, নাটোর-১ বীরেন্দ্র নাথ সাহা, ঢাকা-১ আইয়ুব খান, বগুড়া-৩ আবদুল মুহিত, ২৯৯ রাঙামাটির অমর কুমার দে, বগুড়া-৪ আশরাফুল হোসেন আলমের (হিরো আলম), হবিগঞ্জ-২ মো. জাকির হোসেন, ঢাকা-১৪ সাইফুদ্দিন আহমেদ, সাতক্ষীরা-১ এস এম মুজিবর রহমান, খাগড়াছড়ি আবদুল ওয়াদুদ ভুইয়া, ঝিনাইদহ-১ আবদুল ওয়াব,, দিনাজপুর-৩ সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, পঞ্চগড়-১ মো. তৌহিদুল ইসলাম, বগুড়া-৬ এ কে এম মাহবুবুর রহমান এর আপিল গ্রহণ করা হয়নি।

উল্লেখ্য, প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা, নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, মো. রফিকুল ইসলাম, বেগম কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাত হোসেন চৌধুরী আপিল শুনানি করছেন। এজলাসে ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদও উপস্থিত রয়েছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

error: Content is protected !!