সাম্প্রতিক

আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের জনপ্রিয় শিক্ষক মহাসিন আলী লাইফ সাপোর্টেঃ সুস্থ্যতার জন্য দোয়া প্রার্থনা

আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের জনপ্রিয় শিক্ষক মহাসিন আলী লাইফ সাপোর্টেঃ সুস্থ্যতার জন্য দোয়া প্রার্থনা

আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের জনপ্রিয় শিক্ষক মহাসিন আলী লাইফ সাপোর্টেঃ সুস্থ্যতার জন্য দোয়া প্রার্থনা

হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে ঢাকার মেট্রোপলিটন হাসপাতালে চিকিতসাধীন আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের হাস্যোজ্জ্বল জনপ্রিয় তরুণ গণিত শিক্ষক মহাসিন আলীকে এখন আইসিইউ-তে লাইফ সাপর্টে রাখা হয়েছে। গত ৪ জুন বিদ্যূতবিহীন প্রচন্ড ভ্যাপসা গরমে রোজায় থাকা অবস্থায় তিনি আকস্মিকভাবে অসুস্থ্য হয়ে স্ট্রোকে আক্রান্ত হন। তাকে প্রথমে কুষ্টিয়ার সনো টাওয়ারে নিয়ে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হলে পরে ঢাকার নিউরো সাইন্স হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তারপর বিডিএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শেষে ভর্তি করা হয় মেট্রোপলিটন হাসপাতালে।

জানা গেছে, আলমডাঙ্গা গোবিন্দপুরের আক্কাস আলীর ছেলে মহাসিন আলী (৪৩) আলমডাঙ্গা ডিগ্রী কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক। তার সহধর্মিনী জেসমিন আক্তারও একই বিভাগের প্রভাষক। হাস্যোজ্জল মহাসিন আলী ছিলেন কলেজের জনপ্রিয় শিক্ষক। ছিলেন রসবোধসম্পন্ন ও বন্ধুবতসল। তার বড় ধরণের অসুখ বা শরীর খারাপের কথা জানা যায়নি কখনও। গত ৪ জুন আলমডাঙ্গায় বিদ্যাত ছিল না। জৈষ্ঠ্যের প্রচন্ড ভ্যাপসা গরমে তিনি রোজা থাকা অবস্থায় হঠাত অত্যন্ত কাহিল হয়ে পড়েন। বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে স্ট্রোকে আক্রান্ত হন। সাথে সাথে তাকে আলমডাঙ্গার ফাতেমা ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিতসা নিয়ে দ্রুত নিয়ে যাওয়া হয় কুষ্টিয়ার সনো টাওয়ারে। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হলে সন্ধ্যায় অ্যাম্বুলেন্সে ঢাকার নিউরোসাইন্স হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়।

দীর্ঘ ৮ দিন পর আজ মঙ্গলবার তার শারীরিক অবস্থা অত্যন্ত খারাপ হওয়ায় তাকে লাইফ সাপোর্ট –আইসিইউ-তে নেওয়া হয়েছে। তিনি এখন বেঁচে আছেন কি না তা নিয়েও সংশয় প্রকাশ করছেন অনেকে। তার সুস্থ্যতা কামনা করে পরিবারের পক্ষ থেকে সকলের নিকট দোয়া চাওয়া হয়েছে।

ছবিঃ

error: Content is protected !!